নিজে বাচুঁন অপরকে বাচাঁন — খোরশেদ

713

সম্মানিত নগরবাসী,
আসসালামু আলাইকুম। আপনারা অবগত আছেন যে, সাড়া বিশ্ব জুড়ে প্রানঘাতী করোনা ভাইরাস ছড়িয়ে পরেছে। বাংলাদেশও আশংকা মুক্ত নয়। পাশাপাশি আসন্ন বর্ষা মৌসুমে ডেঙ্গুর মত মরণ ঘাতী রোগের আশংকাও রয়েছে। করোনা ও ডেঙ্গুর জন্য এখনো কোন নিদৃষ্ঠ প্রতিষেধক তৈরী হয়নি। বিধায় আক্রান্ত হওয়ার চেয়ে প্রতিরোধই সব্বোত্তম উপায়।
প্রানঘাতী করোনা ও ডেঙ্গু থেকে মুক্তির একমাত্র উপায় মহান আল্লাহ রাব্বুল আলামীনের দয়া ও নিজেদের সচেতনতা। বিন্দুমাত্র হেলাফেলা করার সুযোগ নাই। তাই আপনাদের প্রতি সবিনয় নিবেদন , আপনার স্ব স্ব ধর্মের প্রতি অনুগত থাকুন। সৃষ্টি কর্তার কাছে দেশ ও জাতির জন্য ক্ষমা প্রার্থনা করুন।
ধর্মীয় অনুশাষন মানার পাশাপাশি নিজের ঘর, বাড়ী ও আশেপাশের স্থান পরিস্কার পরিচ্ছন্ন রাখুন। গৃহস্থলী আবর্জনা পলিথিনে ভরে রাস্তা ঘাটে ফেলা থেকে বিরত থাকুন। পানির রিজার্ভ ট্যাংকি, বাড়ীর ছাদ, ফুলের টবে পানি নিয়মিত পরিস্কার করুন। কোথাও সচ্ছ পানি জমতে দিবেন না। সোফা ও খাটের নীচে, পর্দার আড়াল নিয়মিত ঝাড় দিন।
করোনা থেকে বাচঁতে নামাজের অজুর মত করে দিনে কয়েকবার হাত মুখ পানি দিয়ে ধৌত করুন। পশু পাখির সংস্পর্শ এড়িয়ে চলুন। মুখ ঢেকে হাচিঁ কাশি দিন। জনবহুল এলাকা এড়িয়ে চলুন।
সম্মানিত নারায়ণগঞ্জবাসী,
দয়া করে মনে রাখবেন কোন ব্যাক্তি বা প্রতিষ্ঠানের একার পক্ষে করোনা বা ডেঙ্গুর মত মরণ ঘাতী ব্যাধি প্রতিরোধ করা সম্ভব নয়। আমরা আমাদের সীমিত সামর্থ্য ও লোকবল নিয়ে সব্বোর্চ্চ চেষ্ঠা করে যাচ্ছি। এখন শুধু প্রয়োজন আপনাদেও সচেতনতা ও সহযোগিতা। মনে রাখবেন ভাইরাস জনিত রোগ সৃষ্টির মূল কারন যেখানে সেখানে আবর্জনা ফেলা। তাই নাসিক কর্তৃক নিধারিত এনজিও গাড়ীতে আবর্জনা দিন। আল্লাহর দোহাই যেখানে সেখানে গৃহস্থলী বর্জ্য ফেলবেন না।
ড্রেনের উপর ইট বালু রাখবেন না।
মনে রাখবেন একজনের অসচেতনতা/ভূল হাজারো মানুষের দূর্ভোগের কারন।
নিজে বাচুঁন—অপরকে বাচাঁন সহযোগিতা করুন— সেবা নিন।
যে কোন সময় যে কোন পরামর্শ ও নাগরিক সেবার জন্য ২৪/৭ যোগযোগ করুন
মাকছুদুল আলম খন্দকার খোরশেদ
১৩নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর, নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন
কাউন্সিলরঃ ০১৭১৭-১৭৮২৪২, ওয়ার্ড সচিবঃ ০১৯১৪-২৯৫৬১২, এনজিও সুপারভাইজরঃ ০১৮৩৬-৮৮১৯৫০
জনস্বার্থেঃপ্রচারনায়ঃ ওয়ার্কিং ফর বেটার নারায়ণগঞ্জ